1. news@www.banglaroitizzo.com : BanglarOitizzo :
  2. imrankhanbsl01@gmail.com : Imran Khan : Imran Khan
  3. banglaroitizzo.news@gmail.com : newseditor :
বৃহস্পতিবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৯:২৩ অপরাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ :
কালীগঞ্জ পৌর আ’লীগের বিশেষ বর্ধিতসভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। বিশ্বনাথে খেলাফত মজলিসের শূরা অধিবেশন সম্পন্ন করোনাকালে ১৭ সেপ্টেম্বর মহান শিক্ষা দিবস মাকে করোনা ভ্যাকসিন দিতে এসে মোটর বাইক চুড়ি শাজাহানপুরে ১০ টি বিট পুলিশিং কার্যালয় পরিদর্শন কালীগঞ্জ প্রেসক্লাব এর সাধারণ সম্পাদক আল-আমীন দেওয়ান এর মামীর ইন্তেকাল। বিএনপি’র নেতা খন্দকার মাহাবুবের রোগমুক্তিতে জাগপা’র দোয়া মাহফিল ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ মজিবর রহমানের মৃত্যুতে শোক জানিয়েছেন নাজমুল হক প্রধান (সাবেক এমপি) বঙ্গবীর কাদের সিদ্দিকীর সুস্থতা কামনা এনডিপি’র ইতিহাসের এক গুরুত্বপূর্ণ অধ্যায় ৬২’র শিক্ষা আন্দোলন!

বিলুপ্তির দ্বারপ্রান্তে বিশ্বনাথের ‘রাজ- রাজেশ্বরী” মন্দির

বিশ্বনাথ (সিলেট) প্রতিবেদক
  • প্রকাশিত: শনিবার, ২৪ জুলাই, ২০২১
  • ১০৬ বার পড়া হয়েছে
রাজ- রাজেশ্বরী

সৃষ্টি আর ধ্বংসে এগিয়ে চলছে পৃথিবী। কেউ সৃষ্টিতে আর কেউ ধ্বংসের খেলায় মত্ত। আবার কারোর দায়িত্বহীনতায় কালের গহব্বরে সমাহিত হচ্ছে ঐতিহাসিক অতীত। বর্তমান যেমন গুরুত্ববহ সোনালী অতীতও তেমনি অনুপ্রেরণা যোগায়। আমরা বাঙালী আমাদের রয়েছে ঐতিহাসিক অতীত। বাংলার বিভিন্নস্থানে ছড়িয়ে ছিটিয়ে রয়েছে ইতিহাসের স্মৃতিচিহ্ন। এসব ছড়িয়ে থাকা ঐতিহাসিক স্মৃতি বিজড়িত স্থানসমূহ আমাদের স্বত্ত্বাতেকে নাড়া দেয়, তেমনি নাড়া জাগায় ঐতিহাসিক অতীত বহুল স্থান সিলেটের বিশ্বনাথ উপজেলার খাজাঞ্চি ইউনিয়নের চন্দ্র গ্রামের ‘রাজ- রাজেশ্বরী” মন্দির। প্রায় ছয় শত বছরের পুরনো এই মন্দিরটি কালের সাক্ষী হয়ে আজও দাঁড়িয়ে আছে। সংস্কারের অভাবে এই মন্দিরের ভবনে ফাটল ধরে গাছপালা জন্মেছে এবং ইটের সারি ধসে পড়তে শুরু করেছে। এটি বিলিন হলে নিশ্চিত হারিয়ে যাবে উপজেলার ইতিহাস ঐতিহ্যের একটি গুরুত্বপূর্ণ স্থাপত্য।

ঐতিহ্যের এই স্থাপত্যটি সিলেটের জৈন্তাপুরের রাজবাড়ীর সাথে নির্মাণশৈলির কিছুটা মিল পাওয়া যায় ‘রাজ- রাজেশ্বরী”র। জৈন্তা রাজ্যের সেনাপতি থাকাকালে বিজয় মানিক সেনাপতি বিজয় মানিক ‘রাজ-রাজেশ্বরী” মন্দির প্রতিষ্ঠা করেন। এর পর থেকে হিন্দু সম্প্রদায়ের তীর্থ স্থান হিসেবে বিবেচিত হয়ে আসছিলো এই মন্দিরটি ।
সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়,চার শতক ভূমিতে দাড়িয়ে আছে জরাজীর্ণ ঐতিহাসিক ‘রাজ- রাজেশ্বরী” মন্দির। মধ্যেযুগীয় নানা ধরনের পুরাকীর্তির নিদর্শন ছড়িয়ে আছে মন্দিরে। গাছপালা আর লতাপাতায় ভরে গেছে মন্দিরের সম্পুর্ন দোতলা ভবন। খসে পড়েছে প্লাস্টার ও দেয়ালের অসংখ্য স্থানে ধরেছে ফাটল। ৫ টি রুমের কোন রুমে নেই দরজা।পুরো মন্দির দখলে নিয়েছে চামচিকা ও হরেক রকমের সরীসৃপ প্রাণী। ভরে গেছে ময়লা আবর্জনায়।নীচের তলার চারটি ভাগে রয়েছে ঘুর্নায়মান টানা অলিন্দ। মন্দিরের পিছনে অংশে রয়েছে একটি ছোট কামরা।এর পরেই উপরে উঠার সিঁড়ি। ছাদের ঠিক মধ্যেখানে দুই দরজা বিশিষ্ট একটি কামরা।মন্দিরের প্রবেশ পথের ডান দিকে দুর্গা ও শিবমন্দিরের অবস্থান। মন্দিরের গাছের গোড়ায় কিছু ইটের অবস্থান দেখা গেলেও আর কোন অস্থিত্ব নেই দুর্গা মন্দিরের।
মন্দিরের অতি নিকটে বংশ পরম্পরায় বসবাস করছেন বিজেন্দু সেনাপতি নারায়ণ (৮০)। তিনি জানান, আমার শতবর্ষী মায়ের কাছ থেকে যে ভাবে এ মন্দিরের বর্ণনা শুনেছি এটি এখনও প্রায় একইভাবে পরিত্যক্ত অবস্থায় রয়েছে। তবে এই ধ্বংস স্তুুপটি আমাদের সম্প্রদায়ের কাছে খুবই গুরুত্ব বহন করে। তাই, শতশত বছরের ধর্মীয় স্মৃতি চিহ্নটি রক্ষায় সরকারের সু-দৃষ্টি কামনা করছি।

মন্দির দেখতে আসা যুবক গোলাম মোস্তফা বলেন, সঠিক পরিকল্পনার মাধ্যমে সংস্কার করা গেলে, এটি হতে পারতো সনাতন ধর্মাবলম্বীসহ সকল মানুষের কাছে দর্শনীয় স্থান ও আকর্ষণীয় পর্যটন কেন্দ্র।

এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও পৌর প্রশাসক সুমন চন্দ্র দাস বলেন, স্থানীয় তহশীলদারকে এ সংক্রান্ত বিষয়ে নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। আইনগত কোন বাধা না থাকলে, এ অর্থ বছরে প্রচীন ঐতিহ্যের এ লালিত ‘রাজ-রাজেশ্বরী মন্দির’টি সংস্কার করা হবে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন

নিউজ ক্যাটাগরি

UDOY ADD
©দৈনিক বাংলার ঐতিহ্য (2019-2020)